June 27, 2016

নোটঃ আল কায়েদার বাংলা ব্লগ - মাকেটিং পর্ব!

বাংলাদেশের জনপ্রিয় ব্লগ "বাঁধ ভাঙার আওয়াজ" বা "সামহ্যয়ারইন ব্লগ" এ মার্কেটিং চলছে আল কায়েদার বাংলাদেশী ব্লগ এর।

"ব্লগার শিশির ইসলাম" নামে একদমই নতুন একজন ব্লগার যিনি নিজের শর্ট বায়োতে লিখেছেন "Fighter of Gazwawe Hind. (AQIS)" এবং এর এই ব্লগে ব্লগিং এর পরিসংখ্যান নিম্নরূপঃ
পোস্ট করেছেন: ১টি
মন্তব্য করেছেন: ৬টি
মন্তব্য পেয়েছেন: ১টি
ব্লগ লিখছেন: ১ সপ্তাহ ৪ দিন
অনুসরণ করছেন: ০ জন
অনুসারিত হচ্ছেন: ২ জন




তার দেওয়া লিংক এর স্ক্রীনশট






ডমেইন এর হুইজ ডাটা প্রটেকটেড।

তার পোস্টটি ইমেজ আকারে সংরক্ষিত হলো।



আশা করছি বাঁধ ভাঙার আওয়াজ এর মডারেটরগন দ্রুত এই পোস্টটি সরিয়ে নেবেন।

আল কায়েদার বাংলাদেশী ব্লগ সকল মুসলিমদের জন্য উন্মুক্ত (ব্লগার শিশির ইসলাম)






সকল প্রশংসা ঐ মহান সত্তার, যিনি সমগ্র জগতের সকল প্রকার ব্যবস্থাপনাকে পরিচালিত করে থাকেন । এ পরিচালনার ক্ষেত্রে তিনি কারো সাহায্যের প্রতি মুখাপেক্ষী নন । দরুদ ও সালাম বর্ষিত হোক শেষ নবী মুহাম্মদে আরাবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম এর উপর, যাকে বিশ্বের বুকে প্রেরণ করা হয়েছে- মুর্খতার চাদরে ঢাকা সভ্যতাকে মিটিয়ে বিশ্বময় ইসলামী শাষন প্রতিষ্ঠা করতে । পাশাপাশি নুর বর্ষিত হোক ঐ সকল মহামনীষীদের উপর, যারা মানবতার মুক্তির দূত- নবী করীম সা. এর সাথে থেকে তার এ মিশনকে বাস্তবায়ন করার জন্য সর্বস্ব ত্যাগ করে দ্বীনের কালেমাকে উচু করে গেছেন । রহমত বর্ষিত হোক ঐ সকল হকপন্থী উলামায়ে কেরামের উপর, যারা ইসলাম নামক বৃক্ষকে তাজা ও সমুন্নত রাখতে যুগে যুগে নিজেদের তপ্তখুন বিসর্জন দিয়েছেন । আল্লাহ পাকের পরিপূ্র্ণ মদদ ও সাহায্য অবতীর্ণ হোক ঐ সকল মর্দে মুজাহিদীনের উপর, যারা হকপন্থী উলামায়ে কেরামের নেতৃত্বে স্বীয় কলিজার টুকরাকে বিসর্জন দিয়ে যুগের ফেরাউনদের ভয়ে ঠিট্টির কাপতে থাকা উম্মতকে পূনর্জাগরণ করে যাচ্ছেন এবং মুসলমানদেরকে সম্মানের সাথে জীবনযাপন ও সম্মানের সাথে মৃত্যুবরণ করার সবক শিখিয়ে যাচ্ছেন । সকল অনিষ্টতা ও ধ্বংস অবতীর্ণ হোক ঐ সকল ইসলামবিদেষ্বীর উপর, যারা ইসলাম ও মুসলমানদের বিরুদ্ধে একের পর এক ষড়যন্ত্র করে যাচ্ছে ।

আলহামদুলিল্লাহ, মহান আল্লাহ তায়ালার অশেষ রহমতে আল কায়েদা ভারত উপমহাদেশীয় সকল শাখা জিহাদি সকল কাজকর্ম অনেক ঝুকির মাঝেও খুব সুন্দর করে চালিয়ে যাচ্ছে । আল্লাহ তায়ালার ইচ্ছায় আল কায়েদা ভারত উপমহাদেশের বাংলাদেশ শাখা আনসার আল ইসলাম ইতোমধ্যেই বাংলাদেশী কিছু ইসলামবিদ্বেষী নাস্তিক ব্লগার কে কচুকাটা করে জাহান্নামে পাঠাতে সক্ষম হয়েছে । যেমন- রাজিব, ওয়াশিকুর, অভিজিত, অনন্ত, নীলয় ও আরো অন্যান্য কিছু নাস্তিক জাহান্নামের কীট কে ধারালো চাপাতির আঘাতে ক্ষত-বিক্ষত করতে সক্ষম হয়েছে । সকল প্রশংসা আল্লাহ তায়ালার ।

আল কায়েদা ভারত উপমহাদেশ বাংলাদেশ শাখা “আনসার আল ইসলাম” বাংলাদেশী সকল মুসলিমদের জন্য ইতোমধ্যেই আল কায়েদার বাংলাদেশী একটি ব্লগ সকল মুসলিমদের জন্য উন্মুক্ত করে দিয়েছে। প্রত্যেক মুসলমান যাতে নিজেদের হারিয়ে যাওয়া জিহাদ নামক ফরজ ইবাদাতের প্রতি পূনরায় সচেতন হতে পারে সেজন্যই আল কায়েদার এ ব্লগটি সবার সামনে তুলে ধরা হয়েছে । মুসলমান জাতি যাতে কোনটা জিহাদ কোনটা সন্ত্রাসবাদ, কোনটা সত্য কোনটা মিথ্যা, কোনটা সঠিক কোনটা ভুল তা বুঝতে পারে সেজন্য প্রত্যেক মুসলমানকে আল কায়েদার ব্লগে আহবান জানিয়েছে আল কায়েদা ভারত উপমহাদেশের বাংলাদেশ শাখা আনসার আল ইসলাম ।

আনসার আল ইসলাম (AQIS) এর ব্লগ দাওয়াহ ইলাল্লাহ ( https://dawahilallah.in ) । দাওয়াহ ইলাল্লাহ ই হচ্ছে বর্তমান বাংলাদেশে সত্য প্রকাশে অবিচল একটি ব্লগ । দাওয়াহ ইলাল্লাহ ব্লগ এর প্রধান উদ্দেশ্য বাংলাদেশী সকল মুসলিমকে ঐক্যবদ্ধ করা ও সঠিক জিহাদ কি তা জাতির সামনে তুলে ধরা ।

আল কায়েদার বাংলাদেশী ব্লগে সকল মুসলিমদের কে আহবান রইলো ।

ব্লগে অ্যাকাউন্ট খোলার নিয়ম-
প্রথমে Forum বাটনে (অথবা সরাসরি Registration বাটনে) ক্লিক করুন । তারপর Registration বাটনে ক্লিক করুন । এখন কিছু খালিঘর পাবেন তা যথারীতি পূরণ করুন । Username এর জায়গায় আপনি আপনার পুরো নাম লিখুন । এখানে অন্যান্য ব্লগের মত ইউজারনেমে কোনো সংখ্যা ব্যবহার করতে হয়না, জাস্ট আপনার পুরো নাম স্পেস সহকারে লিখতে পারবেন আর এটাই আপনার ইউজারনেম । পরবর্তীতে স্পেস সহকারে এই পুরো নাম আর পাসওয়ার্ড দিয়েই লগিন করতে হয় । এবার Password এবং Confirm Password বক্সে আপনার নতুন পাসওয়ার্ড লিখুন । তারপর Email Address এবং Confirm Email Address বক্সে আপনার ইমেইল আইডি লিখুন । Random Question বক্সে আপনাকে প্রশ্ন করা হবে ইসলামের মুল বুনিয়াদ কয়টি । সঠিক উত্তর 5 টি । Random Question বক্সে শুধু ইংরেজীতে 5 লিখুন । এখন Referrer নামক একটি বক্স দেখাবে । এই বক্সটিতে দাওয়াহ ইলাল্লাহ’র অন্য একজন সদস্য ব্লগারের নাম লিখতে হয় । আপনি দাওয়াহ ইলাল্লাহ’র মাঝে যেকোনো একটি লেখা থেকে একজন সদস্যের নাম সংগ্রহ করে এখানে লিখে দিলেই হবে । কাজ মোটামোটি শেষ । এখন আপনি ব্লগের নীতিমালাটা পড়ে নিন । যদি নীতিমালাটা আপনার ভাল লাগে তাহলে I have read, and agree to abide by the দাওয়াহ ইলাল্লাহ rules এই বক্সে টিক চিহ্ন দিয়ে Complete Registration বাটনে ক্লিক করুন । ব্যাস, আপনার কাজ শেষ । আপনিও হয়ে যাবেন দাওয়াহ ইলাল্লাহ ব্লগের একজন ব্লগার ।

ব্লগের নীতিমালা-
অন্যান্য সকল ব্লগের মতই দাওয়াহ ইলাল্লাহ’র ও রয়েছে কিছু নীতিমালা । যথা-

 ব্লগে কারো সম্পর্কে কোনো প্রকার মিথ্যাচার করলে ব্যান হতে হবে । তবে হ্যা, কোনো ব্যক্তি বা জাতি সম্পর্কে মন্তব্য থাকাটা স্বাভাবিক । কাজেই কারো সম্পর্কে কোনো মন্তব্য থাকলে তা শালীন ভাষায় তুলে ধরতে হবে এবং অন্যান্য ব্লগাররাও তা শালীন ভাষায় জবাব দিতে হবে ।
 আল কায়েদা বা আল কায়েদার কোনো শাখা বা আল কায়েদার কোনো কাজ বা মতাদর্শ নিয়ে অথবা অন্যান্য কোনো দল বা ব্যক্তির প্রতি কারো কোনো প্রকার সন্দেহ থাকলে তা শ্লীল ও শালীন ভাষায় প্রকাশ করতে হবে ।
 কোনো লেখা বা মন্তব্য কোনোমতেই অশালীন হওয়া যাবেনা, অশালীন হলে ব্যান হতে হবে ।
 বাজে, মিথ্যা, অশ্লীল, যৌনচারিতা, গালিগালাজ, অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ কোনো লেখা, ছবি বা কোনো লিংক প্রকাশ করা যাবেনা ।
 কারো সম্পর্কে কোনো প্রকার মন্তব্য প্রকাশ করলে তা সম্পূর্ণ দলীল ভিত্তিক প্রকাশ করতে হবে ।
 কোরান সুন্নাহ’র সাংঘর্ষিক কোনো লেখা প্রকাশ করা যাবেনা ।
 কোনো ব্যক্তি, জাতি বা ধর্ম নিয়ে ব্যঙ্গ করা যাবেনা । তবে দলীল ভিত্তিক কোনো ব্যক্তি, জাতি বা ধর্মের অজানা সকল সত্য কে উদঘাটন করা যাবে সম্পূর্ণ ভদ্র ভাষায় ।
 নাস্তিকতামূলক লেখা প্রকাশ করা যাবেনা । তবে হ্যা, ইসলাম ধর্ম সম্পর্কে বা ইসলামের বিধি-বিধান সম্পর্কে যদি আপনার কোনো প্রকার সন্দেহ বা ইসলামী কোনো বিধান আপনার কাছে অযৌক্তিক মনে হয় তাহলে তা শালীন ভাষায় ব্লগে প্রকাশ করুন আর সঠিক উত্তরের প্রত্যাশা করুন, লেখাটি ব্লগে এমন ভাবে প্রকাশ করুন যেন আপনি সেটার উত্তর জানতে চাচ্ছেন । খেয়াল রাখবেন লেখাটি যাতে নাস্তিকতামূলক না হয় । নাস্তিকতামূলক হলে ব্যান হতে হবে । তাছাড়া প্রশ্নোত্তরের জন্য দাওয়াহ ইলাল্লাহ তে বিশেষ ব্যবস্থা রয়েছে ।
 চলমান প্রেম-ভালবাসা নিয়ে গল্প-কবিতা বা কাহিনী প্রকাশ করা যাবেনা ।
 অযথা হাসি-ঠাট্টা, ব্যঙ্গচারিতা, জোকস মূলক লেখা প্রকাশ করা যাবেনা ।

পরিশেষে বলতে চাই, আমরা মুসলমান । আমাদের আদর্শই সর্বোত্তম আদর্শ । মানব জাতি যখন অন্ধকারে ডুবে ছিল তখন আমরা মুসলমানরাই দুনিয়ার বুকে মানব জাতি কে আলোর পথ দেখিয়েছি । আমরা মুসলমানরাই সে জাতি, যে জাতি সুন্দর ব্যবহার, সুন্দর বিচার ব্যবস্থা নামক প্রক্রিয়া কে মানব জাতির সামনে তুলে ধরেছি । হ্যা আমরাই সে জাতি, যে জাতি গর্ত থেকে তুলে মানব জাতি কে আধুনিক হয়ে বাচতে শিখিয়েছি । ইতিহাস সাক্ষী, একমাত্র মুসলমানরাই প্রথম ধর্ম, বর্ণ নির্বিশেষে সকলের জন্যই ন্যায়নীতি প্রতিষ্ঠা করেছে । কাজেই আজ আমাদের এসব ভুলে গেলে চলবেনা । আমাদের আদর্শ হতে হবে উত্তম আদর্শ । আমাদের নীতি হতে হবে উত্তম নীতি । হোক অনলাইনে, হোক অফলাইনে, সবক্ষেত্রেই আমাদের ব্যবহার হতে হবে উত্তম ব্যবহার, যে ব্যবহার শিখিয়ে গেছেন আমাদের প্রিয়নবী মুহাম্মাদ (স) । আমরা একমাত্র রাসুল (স) এর আদর্শেই বিশ্বাসী ।

Disqus for Simple thoughts...